Crime

সেহরির সময় দুশমনি করে বন্ধুকে বাথরুমে আটকে রাখলো এক মেস মেম্বার

মেসে কতরকমের দুষ্টমিই তো হয়। আড্ডার সময় মেস মেম্বাররা হয় একজন আরেকজনের ভাইয়ের মত। আবার ধারের টাকা উসুল করার সময় মেস মেম্বারসা হয় একে অপরের বাবা মার হত্যাকারীর মত। প্রতিশোধের আগুনে দাউ দাউ করে জ্বলতে থাকে।

ঠিক এটাই হলো আজকে। সেহরির সময় শত্রুতাবশত বন্ধুকে বাথরুমে আটকে রাখলো এক মেস মেম্বার !

খিঁলগাওয়ের একটি মেসে রোজা রাখার জন্য তিন বন্ধু একসাথে ঘুম থেকে যে যার মত ব্রাশ করতে যায়। এদের মধ্যে একজনের নাম আনিস, আরেকজনের নাম মিনহাজ। আনিসের কাছে মিনহাজ তিনশ পচাত্তর টাকা পায়। কিন্তু আনিসকে গালি দিলেও সে টাকা ফেরত দেয় না।

আজ প্রথম রোজার প্রথম সেহরির সময় আনিস ব্রাশ করতে করতে বাথরুমে গেলে মিনহাজ বাইরে থেকে দরজা লাগিয়ে আলো বন্ধ করে দেয়। অন্ধকার পেয়ে আনিস বাথরুমের ভেতরই ঘুমিয়ে যায়। সেহরির আর একমিনিট বাকি আছে, এমন মাইকিং শুনতে পেয়ে তার ঘুম ভাঙে।

তবে মিনহাজ অস্বীকার করে বলেছে এ ঘটনায় তার হাত নেই। হয়ত ভুলবশত তৃতীয়জন দরজা লাগিয়ে দিয়েছে।

রোজা না রাখলে আবার পড়ুন :

মেসে কতরকমের দুষ্টমিই তো হয়। আড্ডার সময় মেস মেম্বাররা হয় একজন আরেকজনের ভাইয়ের মত। আবার ধারের টাকা উসুল করার সময় মেস মেম্বারসা হয় একে অপরের বাবা মার হত্যাকারীর মত। প্রতিশোধের আগুনে দাউ দাউ করে জ্বলতে থাকে।

ঠিক এটাই হলো আজকে। সেহরীর সময় শত্রুতাবশত বন্ধুকে বাথরুমে আটকে রাখলো এক মেস মেম্বার !

খিঁলগাওয়ের একটি মেসে রোজা রাখার জন্য তিন বন্ধু একসাথে ঘুম থেকে যে যার মত ব্রাশ করতে যায়। এদের মধ্যে একজনের নাম আনিস, আরেকজনের নাম মিনহাজ। আনিসের কাছে মিনহাজ তিনশ পচাত্তর টাকা পায়। কিন্তু আনিসকে গালি দিলেও সে টাকা ফেরত দেয় না।

আজ প্রথম রোজার প্রথম সেহরীর সময় আনিস ব্রাশ করতে করতে বাথরুমে গেলে মিনহাজ বাইরে থেকে দরজা লাগিয়ে আলো বন্ধ করে দেয়। অন্ধকার পেয়ে আনিস বাথরুমের ভেতরই ঘুমিয়ে যায়। সেহরীর আর একমিনিট বাকি আছে, এমন মাইকিং শুনতে পেয়ে তার ঘুম ভাঙে।

তবে মিনহাজ অস্বীকার করে বলেছে এ ঘটনায় তার হাত নেই। হয়ত ভুলবশত তৃতীয়জন দরজা লাগিয়ে দিয়েছে।